English
শনিবার ২৫ মে ২০২৪
...

ইস্তাম্বুলে বোমা হামলা সন্দেহভাজনকে গ্রেপ্তার

ফাইল ছবি

ঢাকা, ১৪ নভেম্বর, ২০২২, সোমবারঃ তুরস্কের ইস্তাম্বুলের তাকসিম স্কয়ার এলাকায় বিস্ফোরণের ঘটনায় বোমাটি স্থাপনকারী ব্যক্তিসহ ২২ সন্দেহভাজনকে সন্দেহভাজনকে গ্রেপ্তার করেছে তুর্কি পুলিশ। রোববারের এই ঘটনায় অন্তত আটজন নিহত এবং ৮১ জন আহত হয়েছে বলে নিশ্চিত করেছেন এক কর্মকর্তা।

সরকারি বার্তা সংস্থা আনাদুলু সোমবার তার উদ্ধৃতি দিয়ে এ কথা জানিয়েছে। দেশী ও বিদেশী পর্যটকদের আকর্ষণীয় ইস্তাম্বুলের ব্যস্ততম ইস্তিকলাল সড়কে রোববার বিকেলে ভয়াবহ বোমা হামলা চালানো হয়। এতে ছয় জন প্রাণ হারায়। আহত হয়েছে অন্তত ৮১ জন। তুরস্কের প্রেসিডেন্ট রিসেপ তায়িফ এরদোগান এ হামলার তীব্র নিন্দা জানিয়ে একে সন্ত্রাসী কাজ বলে উল্লেখ করেন।

স্বরাষ্ট্র মন্ত্রী সুলেইমান সুইলো এক বিবৃতিতে বলেছেন, যে ব্যক্তি বোমাটি পুঁতেছে তাকে আটক করা হয়েছে। তিনি বলেন, আমাদের অনুসন্ধানে জানা গেছে এর জন্যে দায়ী সন্ত্রাসী সংগঠন পিকেকে। পিকেকে কালো তালিকাভুক্ত সন্ত্রাসী সংগঠন। আঙ্কারা ও পশ্চিমা মিত্ররা একে এ... তালিকাভুক্ত করে। সংগঠনটি ১৯৮০’র দশক থেকে তুরস্কের দক্ষিণ-পূর্বাঞ্চলে কুর্দি স্বায়ত্তশাসনের দাবিতে ভয়াবহ বিদ্রোহ চালিয়ে আসছে। তুরস্কের ভাইস প্রেসিডেন্ট ফুয়াদ ওকতাই একে সন্ত্রাসী হামলা উল্লেখ করে ঘটনার সঙ্গে একজন নারী জড়িত বলে জানান।

তিনি বলেন, "সিসি ক্যামেরার ফুটেজে দেখা গেছে একজন নারী একটি বেঞ্চে ৪০ মিনিটেরও বেশি সময় ধরে বসেছিলেন। পরে তিনি উঠে যান। এর এক কি দুই মিনিট পরেই বিস্ফোরণ ঘটে।" ভাইস প্রেসিডেন্ট আরো বলেন, "হয় বোমাটি কৌশল করে একটি ব্যাগের  ভেতর রেখে যাওয়া হয়েছে, না হয় কেউ দূর থেকে এটি নিয়ন্ত্রণ করেছে।" তিনি আরো জানান, "সবকিছু খুঁটিয়ে দেখা হচ্ছে।"

সোয়লু হুশিয়ারি দিয়ে বলেন, "আমরা যারা এই জঘন্য সন্ত্রাসী হামলার জন্য দায়ী তাদের বিরুদ্ধে প্রতিশোধ নেব।" তিনি আরও বলেন, "মৃত্যুর সংখ্যা ছয় থেকে আটজনে উন্নীত হয়েছে এবং ৮১ জন আহত হয়েছে, যাদের মধ্যে দুজনের অবস্থা আশঙ্কাজনক।"




মন্তব্য

মন্তব্য করুন